রাত ০১:১২ ; শুক্রবার ;  ২১ জুন, ২০১৯  

ইনফোসিস থেকে প্রশিক্ষণ নিলেন দেশের ১০০ তরুণ

প্রকাশিত:

সম্পাদিত:

টেক রিপোর্ট॥

ভারতের কর্ণাটক রাজ্যের মহীশূরের ইনফোসিস টেকনোলজিস লিমিটেড থেকে তথ্যপ্রযুক্তিতে উঁচুমানের প্রশিক্ষণ নিলেন বাংলাদেশের ১০০ তরুণ। তরুণদের এই প্রশিক্ষণ শেষ হলো মঙ্গলবার। ইনফোসিস এবং বাংলাদেশ সরকারের তথ্য ও যোগাযোগ প্রযুক্তি (অাইসিটি) বিভাগের উদ্যোগে আয়োজিত এ কার্যক্রমে প্রোগ্রামিং ভাষা জাভার ওপর শিক্ষার্থীদের প্রশিক্ষণ দেওয়া হয়।

ইনফোসিস টেকনোলজিস লিমিটেডের ক্যাম্পাসে শিক্ষার্থীরা হাইটেক পার্ক কর্তৃপক্ষের ‘সাপোর্ট টু ডেভেলপমেন্ট অব কালিয়াকৈর হাই-টেক পার্ক’ প্রকল্পে বিনামূল্যে এই প্রশিক্ষণের সুযোগ পান।

অাইসিটি বিভাগের প্রতিমন্ত্রী জুনাইদ আহমেদ পলক সমাপনী অনুষ্ঠানে উপস্থিত থেকে প্রশিক্ষণার্থীদের মাঝে সনদ বিতরণ করেন। এ সময় তিনি প্রশিক্ষণার্থীদের প্রশিক্ষণের অভিজ্ঞতা কাজে লাগিয়ে ডিজিটাল বাংলাদেশ বিনির্মাণে আরও জোরালো অবদান রাখার আহবান জানান। তিনি প্রশিক্ষণার্থীদের বলেন, আমরা আপনাদের বিশ্বমানের মানবসম্পদ হিসেবে গড়ে দিলাম, আপনাদের কর্তব্য হবে সেই শাণিত মেধাকে কাজে লাগিয়ে দেশকে বিশ্বদরবারে আরও এগিয়ে নেওয়া এবং সম্মানিত করা।

এর আগে মহীশুর ডেভেলপমেন্ট সেন্টারের প্রধান সাজি ম্যাথুর নেতৃত্বে ইনফোসিস কর্তৃপক্ষের সঙ্গে এক মত বিনিময় অনুষ্ঠানে পলক বাংলাদেশের সঙ্গে তাদের প্রশিক্ষণ কার্যক্রম শুরুর আহবান জানালে ইনফোসিস কর্তৃপক্ষ তা বিবেচনা করবেন বলে আশ্বাস দেন।

উক্ত মত বিনিময় অনুষ্ঠানে উপস্থিত ছিলেন বাংলাদেশ কম্পিউটার কাউন্সিলের (বিসিসি) নির্বাহী পরিচালক এস এম আশরাফুল ইসলাম, অাইসিটি বিভাগের যুগ্মসচিব সুশান্ত কুমার সাহা, সাপোর্ট টু কালিয়াকৈর হাই-টেক পার্কের প্রকল্প পরিচালক শফিকুল ইসলাম, ইঅারডির উপ-প্রধান জাহাঙ্গীর হোসাইনসহ অারও অনেকে।

প্রসঙ্গত, প্রশিক্ষণার্থীদের প্রশিক্ষণ খরচ ও বিনামূল্যে আবাসনের ব্যবস্থা করে ইনফোসিস। যাতায়াত খরচসহ অন্যান্য ব্যয় বহন করে প্রকল্প কর্তৃপক্ষ। ১০০ প্রশিক্ষণার্থীর মধ্যে ৯০ জন ছিলেন গ্রাজুয়েট। অবশিষ্ট ১০ জন বিভিন্ন বিশ্ববিদ্যালয়ের শিক্ষক। প্রশিক্ষণ ১২ জানুয়ারি শুরু হয়ে শেষ হয় ২৪ মার্চ।

/এইচএএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।