বিকাল ০৫:০১ ; সোমবার ;  ১৪ অক্টোবর, ২০১৯  

গুড লাক বাংলাদেশ

প্রকাশিত:

হাবিবুল বাশার॥

বিশ্বকাপ শুরুর পর সংযুক্ত অারব অামিরাত ও আয়ারল্যান্ডের অাজকের ম্যাচের মতো এমন প্রতিদ্বন্দ্বিতার ঝাঁঝ আর কোনও ম্যাচে এখনও দেখতে পাইনি। যদিও দুটি দলই সহযোগী দেশ কিন্তু দর্শনীয় খেলা কাকে বলে সেটা ওরা করে দেখিয়েছে। এর আগে বড় দলের খেলাগুলোতে ম্যাচ শেষের অনেক আগেই ফলাফল সম্পর্কে ধারণা করা গেছে। কিন্তু আজকের খেলায় একদম শেষ ওভার পর্যন্ত উত্তেজনায় টইটম্বুর ছিল।

এটা ঠিক যে ম্যাচের আগে সব দিক থেকে এগিয়ে ছিল অাইরিশরাই। অভিজ্ঞতা, ফর্ম এবং ফিটনেস সব দিক দিয়ে ওরাই ফেবারিট ছিল। তুলনা করলে বলতে হবে অাইরিশরা খেলার অনেক সুযোগ পায়। বিশেষ করে ওরা কাউন্টি ক্রিকেট খেলে অভ্যস্ত। তাই পেশাদারি ক্রিকেট কাকে বলে ওরা তা ভালো ভাবেই জানে।

অন্যদিকে, আরব আমিরাতের বেশির ভাগ খেলোয়াড়রা পেশাদার না। ওরা মূলত কাজের ফাঁকে ক্রিকেট খেলে বেড়ায়। অার খুব বেশি আন্তর্জাতিক ক্রিকেট খেলার সুযোগও হয় না ওদের।

সব কিছু বিচারে নিলে এটাই বলবো আয়ারল্যান্ড এগিয়ে থাকলেও ম্যাচে কিন্তু টক্কর হয়েছে সমানে সমান। অামার মনে হয়েছে আমিরাতের জয়টা প্রাপ্য ছিল। তবে ম্যাচ জেতার জন্য ভাগ্যদেবীর সহায়তাও লাগে। যেটা আজ আমিরাতের সহায় ছিল না। আয়ারল্যান্ড তার ব্যাটিং এবং অভিজ্ঞতা দিয়ে ম্যাচটা জয় করে নিয়েছে। কেভিন ও'ব্রায়েনের অর্ধশত রান ও গ্যারি উইলসনের সর্বোচ্চ ৮০ রানই ম্যাচটিকে আইরিশদের পক্ষে নিয়ে এসেছে। এ জয়ে পরের রাউন্ডে যাওয়ার জন্য পথটা অনেক সহজ হয়ে গেলো। আর পাকিস্তানের জন্য কাজটা আরও কঠিন হয়ে গেলো, তাদেরকে এখন প্রতিটি ম্যাচ জিততে হবে।

কাল বৃহস্পতিবার বাংলাদেশের জন্য খুব গুরুত্বপূর্ণ ম্যাচ শ্রীলঙ্কার বিপক্ষে। ম্যাচের অাগে কিছুটা দুশ্চিন্তায় ছিলাম মুশফিকুর রহিমকে নিয়ে। ভাগ্য ভালো কোনও অঘটন ঘটেনি। তার দলে থাকা শুভ সংবাদ। কালকের ম্যাচটি জিততে পারলে বলা যায় দ্বিতীয় রাউন্ডে আমরা এক পা দিয়েই রাখবো। আমি চাই বাংলাদেশ তার সবটুকু উজাড় করে দিয়ে খেলুক। ফলাফল যাই হোক রানরেটের দিকে অামাদের নজর রাখতে হবে পাখির চোখের মতো। আমাদের রান রেট কিন্তু যথেষ্ট ভালো আছে।

প্রতিপক্ষ শ্রীলঙ্কা একটি অভিজ্ঞদল। তাদের বেশ কিছু বিশ্বমানের খেলোয়াড় আছে। তবে এবার কিন্তু মনে হচ্ছে তারা খুব একটা ভালো ফর্মে নেই। বাংলাদেশ তাদের দিনে অাগ্রাসী রূপ নিয়েই প্রতিপক্ষকে গুড়িয়ে দেয়। আশা করছি আগামীকাল বাংলাদেশের সে রকম একটি দিন যাবে। গুড লাক বাংলাদেশ।

/এনএস/এফঅাইঅার/টিএন/

 

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।