রাত ০৮:৩১ ; রবিবার ;  ২২ সেপ্টেম্বর, ২০১৯  

লিঙ্গ সমতায় বাংলাদেশ আরও এগিয়ে

প্রকাশিত:

সম্পাদিত:

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট॥

স্বাস্থ্যসেবা, শিক্ষা, কাজের সুযোগ পাওয়া ও রাজনৈতিক কমকাণ্ডে অংশগ্রহণের ক্ষেত্রে ভারত ও পাকিস্তানের চেয়ে এগিয়ে আছে বাংলাদেশ। বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের ‘লিঙ্গ বৈষম্য সূচকে’ (জেন্ডার গ্যাপ ইনডেক্স) বাংলাদেশ দক্ষিণ এশিয়ার অন্য সব দেশের চেয়ে এগিয়ে রয়েছে। মঙ্গলবার লিঙ্গ বৈষম্য সূচক ২০১৪ প্রকাশিত হয়েছে।

বিশ্বের ১৪২টি দেশে নারীর পরিস্থিতি নিয়ে করা এ সূচকে বাংলাদেশের অবস্থান এবার ৬৮তম। ভারত ১১৪তম ও পাকিস্তান ১৪১তম অবস্থানে রয়েছে।

গত বছর ১৩৬টি দেশের মধ্যে বাংলাদেশ ছিল ৭৫ নম্বরে। ভারত ছিল ১০১ নম্বরে। পাকিস্তান গতবারও ছিল শেষ থেকে দুই নম্বরে।

সূচক অনুযায়ী বিশ্বে এখন নারীরা সবচেয়ে বেশি বৈষম্যের শিকার ইয়েমেন ও মধ্য আফ্রিকার দেশ চাদে।

লৈঙ্গিক সমতা অর্জনের ক্ষেত্রে প্রথম পাঁচটি দেশ হচ্ছে আইসল্যান্ড, ফিনল্যান্ড, নরওয়ে, সুইডেন ও ডেনমার্ক।

যুক্তরাষ্ট্র গতবারের চেয়ে তিন ধাপ এগিয়ে এবারের তালিকায় ২০ নম্বরে চলে এসেছে। চীন ৮৭, ব্রাজিল ৭১, দক্ষিণ আফ্রিকা ১৮তম অবস্থান পেয়েছে।

বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের নির্বাহী চেয়ারম্যান ক্লাউস স্কাব বলেন, 'অর্থনৈতিক কারণেই লিঙ্গ সমতা অর্জন করা জরুরি। যেসব দেশ তাদের সব মেধাকে কাজে লাগাতে পারে শুধু তারাই প্রতিযোগিতায় টিকতে ও এগিয়ে যেতে পারবে।'

বিশ্ব অর্থনৈতিক ফোরামের প্রতিবেদন বলা হয়েছে, বিশ্বের ১১১টি দেশের গত নয় বছরের তথ্য বিশ্লেষণে দেখা গেছে কর্মক্ষেত্রে নারী-পুরুষের সমতায় অগ্রগতি হয়েছে খুব সামান্যই। ২০০৬ সালে যেখানে ১০০ জন পুরুষের বিপরীতে ৫৬ জন নারী অর্থনৈতিক কর্মকাণ্ডে অংশগ্রহণের সুযোগ পেত, সেখানে বর্তমানে ৬০ জন নারী এ সুযোগ পাচ্ছে। সূত্র: দ্য গার্ডিয়ান।

/এফএস/এফএ

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।