সকাল ১১:২১ ; রবিবার ;  ০৮ ডিসেম্বর, ২০১৯  

‘দিনাজপুরসহ উত্তরের জেলাগুলোয় নাশকতায় জেএমবি জড়িত’

প্রকাশিত:

দিনাজপুর সংবাদদাতা।।

দিনাজপুরে বিদেশি নাগরিক ডা. পিয়েরো পারোলারিকে হত্যার চেষ্টা, কান্তজিউ মন্দিরে বোমা হামলা ও ইসকন মন্দিরে বোমা ও গুলির ঘটনাগুলো এক সূত্রে গাঁথা। এগুলো নিষিদ্ধ ঘোষিত উগ্র জঙ্গিবাদী সংগঠন জামাতুল মুজাহিদিন বাংলাদেশ-এর (জেএমবি) কাজ বলে জানিয়েছেন পুলিশের রংপুর রেঞ্জের ডিআইজি হুমায়ুন কবির। তারাই রংপুর দিনাজপুরসহ বিভিন্ন এলাকায় এসব নাশকতার ঘটনা ঘটাচ্ছে বলে দাবি তার।

আজ শনিবার দুপুর ২টায় দিনাজপুর কোতোয়ালি থানায় এক প্রেস বিফ্রিংয়ে তিনি এসব কথা বলেন। এ সময় দিনাজপুরের পুলিশ সুপার রুহুল আমিন, কোতোয়ালি থানার অফিসার ইনচার্জ একেএম খালেকুজ্জামানসহ পুলিশ প্রশাসন ও স্থানীয় সাংবাদিকরা উপস্থিত ছিলেন।

সাম্প্রতিক হামলাগুলো প্রসঙ্গে ডিআইজি বলেন, একটি মহল পরিকল্পিতভাবে শান্তিপ্রিয়, নিরীহ মানুষ ও বিদেশি নাগরিকদের হত্যা করে দেশকে অস্থিতিশীল করা ও অর্থনীতির অগ্রযাত্রাকে ব্যাহত করার চেষ্টা চালাচ্ছে। তবে যারা এই অপচেষ্টা চালাচ্ছে তাদেরকে অঙ্কুরেই বিনষ্ট করে দেওয়া হবে এবং তাদের কার্যক্রমে সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি কোনও অবস্থাতেই বিনষ্ট হবে না।’

জঙ্গি কার্যক্রম প্রসঙ্গে ডিআইজি বলেন, ‘অস্ত্র সংগ্রহের জন্য জঙ্গিরা ব্যাংকসহ বিভিন্ন জায়গায় ডাকাতি করে। তবে তাদের ইন্ধনদাতা ও পৃষ্ঠপোষক হিসেবে অন্য কোনও শক্তি থাকতে পারে। এসব তদন্ত করে খতিয়ে দেখা হচ্ছে। যারা আটক হয়েছে তাদের জিজ্ঞাসাবাদ ও পুলিশের তদন্তে এগুলো জেএমবির কাজ বলে বেরিয়ে এসেছে। এই বিষয়গুলো পৌর নির্বাচনে কোনও প্রভাব ফেলবে না বলেও জানান তিনি।

এদিকে দিনাজপুরের কাহারোলে ইসকন মন্দিরে হামলার ঘটনায় ২ জনের নাম উল্লেখসহ অজ্ঞাত আরও ছয় জনকে আসামি করে একটি মামলা দায়ের করা হয়েছে। কাহারোল থানার অফিসার ইনচার্জ মনসুর আলী সরকার জানান, ইসকন মন্দিরের পুরোহিত গোবরধন দাস বাদী হয়ে এই মামলাটি দায়ের করেছেন। ইসকন মন্দিরে ঘটনার সময় ও ঘটনার পরের দিন আটক শরিফুল ইসলাম ও মোসাব্বিরুল ইসলামকে ওই মামলায় গ্রেফতার দেখানো হয়েছে।

অন্যদিকে মন্দিরে বোমা হামলা ও গুলির ঘটনার প্রতিবাদে দিনাজপুরে মানববন্ধন কর্মসূচি পালন করেছে হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদ ও পূজা উদযাপন পরিষদ। শনিবার সকাল সাড়ে ১১টায় দিনাজপুর প্রেসক্লাবের সামনে মানববন্ধন কর্মসূচিতে জেলা হিন্দু-বৌদ্ধ-খ্রিস্টান ঐক্য পরিষদের সভাপতি বিশ্বজিৎ ঘোষ কাঞ্চন, সাধারণ সম্পাদক পরিমল চক্রবর্তী তপন প্রমুখ উপস্থিত ছিলেন।

/এসএম /এএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।