রাত ০৫:৪০ ; বুধবার ;  ২৩ অক্টোবর, ২০১৯  

কৌশিক বসু আসছেন আগামীকাল

প্রকাশিত:

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট।।

বিশ্ব ব্যাংকের প্রধান অর্থনীতিবিদ ও জ্যেষ্ঠ ভাইস প্রেসিডেন্ট অধ্যাপক কৌশিক বসু আগামীকাল ১২ ডিসেম্বর শনিবার বাংলাদেশ সফরে আসছেন।

ওই দিন সন্ধ্যা থেকে তার বিভিন্ন অনুষ্ঠানে যোগ দেওয়ার কথা রয়েছে। তার আগমন উপলক্ষে গত সোমবার কেন্দ্রীয় ব্যাংকের জাহাঙ্গীর আলম কনফারেন্স হলে এক সংবাদ সম্মেলনের আয়োজন করা হয়েছে।

সংবাদ সম্মেলনে জানানো হয়েছিল, কৌশিক বসু সামষ্টিক স্থিতিশীলতা, ব্যক্তি খাতের উন্নয়ন ও অর্থনৈতিক প্রবৃদ্ধি বিষয়ক আন্তর্জাতিক কর্মশালায় অংশগ্রহণ, গ্রামীণ অর্থনীতির চিত্র দেখতে মাঠ পর্যায়ের পরিদর্শন করবেন।

কৌশিক বসুর সম্ভাব্য সফরসূচিতে রয়েছে, রফতানিমুখী শিল্পের ব্যবসায়ীদের সঙ্গে বৈঠক, বাংলাদেশ ব্যাংকের প্রধান কার্যালয় পরিদর্শন, বিশ্ব অর্থনীতি, বাংলাদেশ ও আঞ্চলিক সহযোগিতা বিষয়ের ওপর বঙ্গবন্ধু আন্তর্জাতিক সম্মেলন কেন্দ্রে গণবক্তৃতা দিবেন।

এছাড়া, অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত সঙ্গে সাক্ষাৎ এবং সবশেষে সাংবাদিকদের সঙ্গে এক সংবাদ সম্মেলনে উপস্থিত থাকবেন বলেও জানা গেছে।

১৫ তারিখ সন্ধ্যায় তিনি ঢাকা সফর শেষে ভারতের উদ্দেশে রওনা হবেন।

কৌশিক বসু ১৯৫২ সালের ৯ জানুয়ারি ভারতের পশ্চিমবঙ্গের কলকাতায় জন্মগ্রহণ করেন। দিল্লির সেন্ট স্টিফেন কলেজে পড়াশোনার পর লন্ডন স্কুল অব ইকোনমিকস থেকে পিএইচডি ডিগ্রি  নেন এ প্রথিতযশা বাঙালি অর্থনীতিবিদ। ২০১২ সালের ১ অক্টোবর তিনি বিশ্বব্যাংকের প্রধান অর্থনীতিবিদের দায়িত্ব নেন। উন্নয়নশীল দেশগুলো থেকে তিনি দ্বিতীয় ব্যক্তি হিসেবে এ পদে অধিষ্ঠিত হন।

এর আগে তিনি ভারত সরকারের প্রধান অর্থনৈতিক উপদেষ্টা হিসেবে দায়িত্ব পালন করেন। কৌশিক বসু ভারত সরকারের পদ্মভূষণ পুরস্কারে ভূষিত হন। অর্থনীতিতে নোবেল বিজয়ী অমর্ত্য সেন তার একাডেমিক উপদেষ্টা। তিনি যুক্তরাষ্ট্রের কর্নেল বিশ্ববিদ্যালয়ে অধ্যাপনা করেন। অর্থনীতির যুক্তিতর্ক ও গল্প বাংলা ভাষায় লিখিত কৌশিক বসুর একটি বিখ্যাত বই। তার লেখা একাধিক বই অক্সফোর্ড ইউনিভার্সিটি প্রেস ও প্রিন্সটন ইউনিভার্সিটি প্রেস থেকে প্রকাশিত হয়েছে। কৌশিক বসু মূলত উন্নয়ন অর্থনীতি, কল্যাণ অর্থনীতি ও শিল্প খাত নিয়ে কাজ করে থাকেন।

আগামী ১৫ ডিসম্বের তিনি ঢাকা ত্যাগ করবেন বলে সফরসূচি সূত্রে জানা গেছে।

/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।