দুপুর ০২:৩০ ; মঙ্গলবার ;  ১৯ নভেম্বর, ২০১৯  

ছাত্রীর আত্মহত্যা, অভিযোগ শিক্ষকের দিকে

প্রকাশিত:

নারায়ণগঞ্জ প্রতিনিধি।।

নারায়ণগঞ্জে হাবিবা আকতার শ্রাবণী (১৫) নামে এক স্কুল ছাত্রীর ঝুলন্ত লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। গলায় ফাঁস দিয়ে সে আত্মহত্যা করেছে বলে তার পরিবার জানিয়েছে। বৃহস্পতিবার সন্ধ্যায় এ ঘটনা ঘটে।

শ্রাবণী শহরের ফলপট্টি এলাকার মাসুদার হাবিবুল্লা মিয়ার মেয়ে। সে ডিআইটি বাণিজ্যিক এলাকার গণবিদ্যা নিকেতনের নবম শ্রেণির ছাত্রী ছিলো।

শ্রাবণীর মৃত্যুর জন্য ওই স্কুলের একজন শিক্ষককে দায়ী করেছে তার পরিবার। তাদের অভিযোগ, বৃহস্পতিবার সকালে কামরুল হাসান মুন্না নামের ওই শিক্ষক শ্রাবণীকে চড় মারে। ওই ঘটনার ক্ষোভ ও অভিমানে সে আত্মহত্যা করেছে।

নারায়ণগঞ্জ সদর মডেল থানার উপ-পরিদর্শক (এসআই ) হামিদুর রহমান শ্রাবণীর পরিবারের বরাত দিয়ে জানান, বৃহস্পতিবার দুপুরে খাওয়া শেষে নামাজ পড়ার জন্য পাশের রুমে যায় সে। বিকাল পর্যন্ত দরজা বন্ধ দেখে স্বজনদের সন্দেহ হয়। পরে দরজা ভেঙে তারা দেখেন ওড়না পেঁচিয়ে ফ্যানের সঙ্গে ঝুলে রয়েছে শ্রাবণী। দ্রুত উদ্ধার করে নারায়ণগঞ্জ জেনারেল (ভিক্টোরিয়া) হাসপাতালে নিয়ে গেলে কর্তব্যরত চিকিৎসক তাকে মৃত ঘোষণা করেন। এরপর খবর পেয়ে পুলিশ লাশ ময়নাতদন্তের জন্য মর্গে পাঠায়।

গণবিদ্যা নিকেতনের পরিচালনা পর্ষদের সভাপতি তোফাজ্জল হোসেন মুকুল বলেন, ‘খবর পেয়ে আমরা নারায়ণগঞ্জ জেনারেল হাসপাতালে গিয়ে শ্রাবণীর লাশ দেখতে যাই। তার পরিবারের সঙ্গে আমার কথা হয়েছে। শনিবার তাদের অভিযোগের বিষয়টি আমরা তদন্ত করে দেখব। ওই সময় পুলিশ সদস্যদেরও উপস্থিত থাকার জন্য বলেছি। যদি ওই শিক্ষক দোষী হয় তাহলে তার বিরুদ্ধে আইনগত পদক্ষেপ নেব।’

 

/এসএম/এসটি/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।