সন্ধ্যা ০৭:০৮ ; শনিবার ;  ২১ জুলাই, ২০১৮  

তৃতীয় দিনের মতো কমেছে সূচক ও লেনদেন

প্রকাশিত:

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট।।

টানা তিন দিনের মতো দেশের দুই পুঁজিবাজারে প্রায় সবগুলো মূল্য সূচক কমেছে। পাশাপাশি টাকার অঙ্কে লেনদেনের পরিমাণও আগের দিনের তুলনায় কমেছে। এর মধ্যে ডিএসইতে কমেছে ৪ দশমিক ১৯ শতাংশ। আর সিএসইতে কমেছে ৯ দশমিক ৮২ শতাংশ।

তবে, ডিএসইতে অধিকাংশ কোম্পানির শেয়ার দর বাড়লেও সিএসইতে তা কমেছে। উভয় এক্সচেঞ্জ সূত্রে এ সব তথ্য জানা যায়।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বুধবার ডিএসইএক্স সূচক কমেছে ৬ পয়েন্ট। ফলে দিনের লেনদেন শেষে সূচকটি নেমে আসে ৪ হাজার ৫৮৭ পয়েন্টে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ১ পয়েন্ট কমে অবস্থান করছে ১ হাজার ১০৪ পয়েন্টে। আর ৫ পয়েন্ট কমে ডিএস৩০ সূচক রয়েছে ১ হাজার ৭৪৩ পয়েন্টে।

এ দিন ডিএসইতে ৩২৩টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৪৪টির, কমেছে ১২৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫৩টির।

বুধবার ডিএসইতে লেনদেন কমেছে ১৬ কোটি ৬৭ লাখ টাকা। এ দিন বাজারে লেনদেনের পরিমাণ ছিল ৩৮১ কোটি ৪১ লাখ টাকা। মঙ্গলবার লেনদেন হয়েছিল ৩৯৮ কোটি ৮ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে এ দিন ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষ ১০ কোম্পানি হলো আফতাব অটো, বেক্সিমকো ফার্মা, স্কয়ার ফার্মা, কাশেম ড্রাইসেলস, ডেল্টা লাইফ ইন্স্যুরেন্স, বিএসআরএম স্টিল, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি, কেডিএস অ্যাক্সেসিরজ, এমআই সিমেন্ট এবং শাশা ডেনিমস।

সিএসই

চট্টগ্রাম স্টক একচেঞ্জে (সিএসই) বুধবার সার্বিক সূচক সিএএসপিআই কমেছে ২৫ পয়েন্ট। ফলে দিনের লেনদেন শেষে সূচকটি নেমে আসে ১৩ হাজার ৯৯৯ পয়েন্টে। এ ছাড়া, সিএসইএক্স ১৫ পয়েন্ট কমেছে। তবে, সিএসই৩০ সূচক ৪ পয়েন্ট বেড়েছে।

এ দিন সিএসইতে ২৫৫টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ৯৭টির, কমেছে ১১৭টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৪১টির।

বুধবার সিএসইতে লেনদেন কমেছে ২ কোটি ৯৬ লাখ টাকা। এ দিন বাজারে ২৭ কোটি ১৮ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। মঙ্গলবার লেনদেন হয়েছিল ৩০ কোটি ১৪ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে এ দিন সিএসইতে লেনদেনের শীর্ষ ৫ কোম্পানি হলো কেয়া কসমেটিক্স, কাশেম ড্রাইসেলস, শাশা ডেনিমস, বিএসআরএম স্টিল এবং আফতাব অটো।

/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।