সন্ধ্যা ০৭:১০ ; রবিবার ;  ২৪ মার্চ, ২০১৯  

পাকিস্তানের তুলনায় বাংলাদেশ এগিয়ে: বাণিজ্যমন্ত্রী

প্রকাশিত:

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট।।

মা ও শিশুদের কল্যাণে বর্তমান সরকার আন্তরিকতার সঙ্গে কাজ করে যাচ্ছে। বর্তমানে ভারত ও পাকিস্তান থেকে বাংলাদেশে মা ও শিশুর মৃত্যুহার কম। বাংলাদেশ অর্থনৈতিক, সামাজিকসহ সকল ক্ষেত্রে পাকিস্তানের তুলনায় এগিয়ে রয়েছে। বাংলাদেশের অগ্রযাত্রা বাধাগ্রস্থ করতে দেশি-বিদেশি অনেক প্রচেষ্টা চালানো হয়েছে। কোন বাঁধাই বাংলাদেশের অগ্রযাত্রাকে বাধাগ্রস্থ করতে পারেনি বলে জানিয়েছেন বাণিজ্যমন্ত্রী তোফায়েল আহমেদ।

বাণিজ্যমন্ত্রী মঙ্গলবার ঢাকায় লা মেরিডিয়ান হোটেলে বোষ্টন ইউনিভার্সিটির সহযোগিতায় নেসলে নিউট্রিশন ইনস্টিটিউট আয়োজিত ‘পোষ্ট গ্রাজুয়েশন প্রোগ্রাম অন পেডিয়াট্রিক নিউট্রিশন’ শীর্ষক সম্মাননা প্রকল্পের সমাবর্তন অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তৃতায় এ সব কথা বলেন।

বাণিজ্যমন্ত্রী বলেন, একসময় যারা বাংলাদেশকে তলাবিহীন ঝুড়ি বলেছিলেন, আজ তারাই বাংলাদেশকে বলছেন মিরাকেল। বাংলাদেশ এখন আর তলাবিহীন ঝুড়ি বা ঘুর্ণিঝড়ের দেশ নয়, সম্ভাবনার দেশ। একসময় সাড়ে সাত কোটি মানুষের খাদ্যের অভাব ছিল, আজ ১৬ কোটি মানুষের খাদ্য চাহিদা পূরণ করে বাংলাদেশ খাদ্য রফতানি করছে।

তিনি বলেন, বাংলাদেশের মোট রফতানি এখন প্রায় ৩২ বিলিয়ন মার্কিন ডলার। উন্নত বিশ্বে স্বল্প উন্নত (এলডিসি)দেশগুলো ঔষধ রফতানির চুক্তির মেয়াদ আগামী ২০৩৩ সাল পর্যন্ত বৃদ্ধি করা হয়েছে। এলডিসি ভুক্ত দেশ গুলোর মধ্যে একমাত্র বাংলাদেশই উন্নত মানসম্পন্ন চাহিদা মোতাবেক ঔষধ স্বল্প মূল্যে রফতানি করতে সক্ষম।

তিনি আরও বলেন, দেশের চাহিদার ৯৭ ভাগ ঔষধ এখন দেশেই তৈরী হচ্ছে। এ মহুর্তে বাংলাদেশ মার্কিন যুক্তরাষ্ট, জার্মানি, ফ্রান্স, ইতালি, যুক্তরাজ্যসহ বিশ্বের ১০৭টি দেশে ঔষধ রফতানি করে আসছে। সামনের দিনগুলোতে এরফতানি অনেক বৃদ্ধি পাবে।

মন্ত্রী বলেন, বাংলাদেশে  কোনও নিরাপত্তা সংকট নেই। যারা বাংলাদেশের নিরাপত্তা নিয়ে প্রশ্ন তুলেছেন, আজ তাদের থেকে বাংলাদেশ বেশি নিরাপদ। বাংলাদেশ এখন অর্থনৈতিক, সামাজিকসহ সকল ক্ষেত্রে এগিয়ে যাচ্ছে। বাংলাদেশের ৫০ বছর পূর্তিতে আগামী ২০২১ সালে রফতানি ৬০ বিলিয়ন মার্কিন ডলারে উন্নীত করার লক্ষ্য নিয়ে সরকার কাজ করে যাচ্ছে।

হলিফেমিলি রেডক্রিসেন্ট মেডিকেল কলেজের প্রিন্সিপাল প্রফেসর ডা. মনিরুজ্জামান ভূঁইয়ার সভাপতিত্বে অনুষ্ঠানে সমাবর্তন বক্তা হিসেবে বক্তব্য রাখেন প্রধানমন্ত্রীর সাবেক স্বাস্থ্য উপদেষ্টা অধ্যাপক ডা. সৈয়দ মোদাচ্ছের আলী এবং  অন্যান্যের মধ্যে বক্তব্য রাখেন বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ^বিদ্যালয়ের প্রো-ভাইস চ্যাঞ্চেলর  প্রফেসর ডা. মো. শরফউদ্দিন আহমেদ। 

/এসআই/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।