দুপুর ০৩:৫৪ ; মঙ্গলবার ;  ২১ নভেম্বর, ২০১৭  

বাংলা একাডেমির হীরক জয়ন্তী উৎসব

প্রকাশিত:

সাহিত্য ডেস্ক||


বাঙালি জাতিসত্তা ও বুদ্ধিবৃত্তিক উৎকর্ষের প্রতীক বাংলা একাডেমি আগামীকাল ৩ ডিসেম্বর প্রতিষ্ঠার ষাট বছর পূর্ণ করছে। গৌরব ও ঐতিহ্যের ছয় দশক পূর্তিতে বাংলা একাডেমি ৩ ও ৪ ডিসেম্বর দু’দিনব্যাপী হীরক জয়ন্তী উৎসবের কর্মসূচি গ্রহণ করেছে। 
৩ ডিসেম্বর সকাল ৯ টায় কেন্দ্রীয় শহিদ মিনার, জাতীয় কবি কাজী নজরুল ইসলামের সমাধিসৌধ এবং ভাষাবিজ্ঞানী ড. মুহম্মদ শহীদুল্লাহর সমাধিতে পুষ্পস্তবক অর্পণের মধ্য দিয়ে উৎসবের সূচনা হবে। 
বিকেল ৩:৩০ মিনিটে একাডেমির রবীন্দ্র-চত্বরে বাংলা একাডেমির সদস্য-ফেলো-কবি-লেখক-বুদ্ধিজীবী ও বিশিষ্ট ব্যক্তিবর্গের সম্মানে এক সংবর্ধনা অনুষ্ঠানের আয়োজন করা হয়েছে।  
বিকেল ৫ টায় আবদুল করিম সাহিত্যবিশারদ মিলনায়তনে হীরক জয়ন্তী স্মারক বক্তৃতানুষ্ঠানে স্বাগত ভাষণ প্রদান করবেন একাডেমির মহাপরিচালক শামসুজ্জামান খান। 

Puthis and the Savants : U.Ve. Swaminatha lyer (Tamil) and Abdul Karim Sahitya Visharad (Bengali) শীর্ষক হীরক জয়ন্তী স্মারক বক্তৃতা প্রদান করবেন ভারতের চেন্নাইয়ের বিশিষ্ট লেখক ও গবেষক ভি. বি গণেশন। অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথি থাকবেন অর্থমন্ত্রী আবুল মাল আবদুল মুহিত। বিশেষ অতিথি থাকবেন সংস্কৃতি বিষয়ক মন্ত্রণালয়ের মন্ত্রী আসাদুজ্জামান নূর, পশ্চিমবঙ্গ বাংলা আকাদেমির সভাপতি বিশিষ্ট নাট্যজন শাঁওলী মিত্র এবং বঙ্গীয় সাহিত্য পরিষৎ, কলকাতা-এর সভাপতি বারিদবরণ ঘোষ। সভাপতিত্ব করবেন বাংলা একাডেমির সভাপতি ইমেরিটাস অধ্যাপক আনিসুজ্জামান। 
বিকেল ৫ টায় একাডেমির নভেরা প্রদর্শনী কক্ষে বাঙালি মনীষার দীপ্ত প্রতিকৃতি শীর্ষক ২৪ দিনব্যাপী প্রদর্শনীর উদ্বোধন করা হবে। এছাড়া উৎসব উপলক্ষে প্রকাশিত বাংলা একাডেমি প্রতিষ্ঠাবার্ষিক বক্তৃতা গ্রন্থের মোড়ক উন্মোচন করা হবে। 
সাংস্কৃতিক পর্বে সংগীত পরিবেশ করবেন পশ্চিমবঙ্গের বিশিষ্ট শিল্পী, নজরুল-দৌহিত্রী অনিন্দিতা কাজী, শিল্পী রফিকুল আলম এবং শিল্পী অণিমা রায়। 

 

 

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।