রাত ০৪:৫৪ ; সোমবার ;  ১৮ নভেম্বর, ২০১৯  

রিয়াজ হত্যা মামলায় দু’জনের ফাঁসি ও দু’জনের যাবজ্জীবন

প্রকাশিত:

মুন্সীগঞ্জ প্রতিনিধি ।।

মুন্সীগঞ্জের গজারিয়ায় রিয়াজ হত্যা মামলায় দুইজনের ফাঁসি ও দুইজনের যাবজ্জীবন কারাদণ্ড দিয়েছে আদালত। মুন্সীগঞ্জের জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ শওকত আলী চৌধুরী।

ফাঁসির আসামিরা হলেন মুন্সীগঞ্জের গজারিয়া উপজেলার যষ্টিতলা গ্রামের মো. রিপন (২৫) ও হুগলাকান্দি গ্রামের শামিম (২৪)। এছাড়া যাবজ্জীবন সাজা প্রাপ্ত আসামিরা হলেন মো. জালাল (২৮) ও মো. মঞ্জিল (২৬)। তাদের মধ্যে মো. মঞ্জিল পলাতক রয়েছেন।

আদালত সূত্রে জানা গেছে, ২০০৯ সালের মার্চ মাসে গজারিয়ার যষ্টিতলা গ্রামের গোলবক্স ব্যাপারির ছেলে রিয়াজের সঙ্গে একই গ্রামের এক মেয়ের প্রেমের সম্পর্ক ছিল। তাদের প্রেমে বাধা হয়ে দাঁড়ায় হুগলাকান্দি গ্রামের শামিম। এক পর্যায়ে রিয়াজ ওই মেয়ের সঙ্গে ঘুরতে গিয়ে নিখোঁজ হন।নিখোঁজের তিনদিন পর স্থানীয় একটি ধানক্ষেতে রিয়াজের মৃতদেহ পাওয়া যায়। পরে গজারিয়া থানায় রিয়াজের বাবা গোলবক্স দেওয়ান বাদী হয়ে একটি হত্যা মামলা দায়ের করেন। পরে শামিম পুলিশের কাছে ধরা পড়ে স্বীকারোক্তিমূলক জবানবন্দি দেয়।দীর্ঘ সাড়ে ছয় বছর পর রবিবার বিকেল সাড়ে ৪টার দিকে জেলা ও দায়রা জজ আদালতের বিচারক মোহাম্মদ শওকত আলী চৌধুরী এ রায় দেন। এ সময় আদালতে ফাঁসির আসামি রিপন ও শামিম এবং যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত আসামি মো. জালাল উপস্থিত ছিলেন। রায় শুনে সবাই কান্নায় ভেঙে পড়েন।

মামলার বাদী গোলবক্স উপস্থিত সাংবাদিকদের কাছে তাৎক্ষণিক প্রতিক্রিয়ায় জানিয়ে বলেন, এই রায়ে তিনি সন্তুষ্ট। তিনি রায়ের দ্রুত বাস্তবায়ন দেখতে চান।

এদিকে এ রায়ের বিরুদ্ধে তিনি উচ্চ আদালতে যাবেন বলে জানিয়েছেন রিপন, শামিমদের আইনজীবী আব্দুল হালিম সরদার। রাষ্ট্রপক্ষের আইনজীবী ছিলেন অ্যাডভোকেট আব্দুল মতিন।

 

/জেবি/টিএন/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।