বিকাল ০৪:৪৭ ; বৃহস্পতিবার ;  ১৭ জানুয়ারি, ২০১৯  

টেকসই উন্নয়নে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে

প্রকাশিত:

সম্পাদিত:

বাংলা ট্র্রিবিউন রিপোর্ট।।

পরিবেশগত টেকসই অর্থায়ন নিশ্চিতকরণে বাংলাদেশ ব্যাংক বিভিন্ন আর্থিক সংস্থা ও অংশিদারদের (সরকারি-বেসরকারি স্টেকহোল্ডার) সঙ্গে সমন্বিত পদক্ষেপ গ্রহণ করা হয়েছে বলে জানিয়েছেন বাংলাদেশ ব্যাংকের গভর্নর ড. আতিউর রহমান।

রবিবার রাজধানীর লা ম্যারিডিয়ান হোটেলে আয়োজিত এক প্রশিক্ষণ কর্মসূচির উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে প্রধান অতিথির বক্তব্যে তিনি এ কথা বলেন।

‘টেকসই উন্নয়নের সবুজ অর্থায়ন এবং গ্রামীণ জনগোষ্ঠীর সুযোগ বিষয়ক আঞ্চলিক ফোরাম’ শীর্ষক এ প্রশিক্ষণ কর্মসূচির আয়োজন করেছে এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় গ্রামীণ এবং কৃষি ঋণ অ্যাসোসিয়েশন (আপ্রাকা), বাংলাদেশ সরকারের কৃষি ঋণ বিভাগ এবং বাংলাদেশ ব্যাংক।

তিন দিনব্যাপী এ প্রশিক্ষণ কর্মসূচিটি ২৯ নভেম্বর, রবিবার হতে আগামী ১ ডিসেম্বর মঙ্গলবার পর্যন্ত ঢাকায় অনুষ্ঠিত হচ্ছে।

গভর্নর বলেন, সামাজিকভাবে দায়বদ্ধ, অন্তর্ভুক্তিমূলক ও টেকসই অর্থায়ন অগ্রযাত্রায় দ্রæত দারিদ্র বিমোচন, সুযোগের অসমতা হ্রাস, খাদ্য ও জ্বালানি নিরাপত্তা বাংলাদেশ ব্যাংকের নীতিতে অগ্রাধিকার দেওয়া হয়েছে।

তিনি আরও বলেন, আর্থিক সেবায় কৃষি ও পল্লী এবং নারী উদ্যোক্তাদের সুযোগ প্রদানও আমাদের নীতি ও কর্মসূচিতে গুরুত্ব প্রদান করা হয়েছে।

আপ্রাকা চেয়ারম্যান সিতাংশু কুমার সুর চৌধুরী বলেন, প্রাতিষ্ঠানিক সামাজিক দায়বদ্ধতার মাধ্যমে টেকসই নীতিমালা, বিধিবিধান প্রণয়নে বাংলাদেশ ব্যাংক অগ্রণী ভূমিকা পালন করছে। বিশেষত, সবুজ পুনঃঅর্থায়ন প্রচলন, সবুজ অর্থায়নে লক্ষ্যমাত্রা নির্ধারণ, পরিবেশগত নীতিমালা প্রণয়নের মাধ্যমে সবুজ ব্যাংকিং কার্যক্রমের পরিধি বাড়ানো হয়েছে।

এশিয়া-প্রশান্ত মহাসাগরীয় অঞ্চলের ২১টি দেশের ৭৪টি গ্রামীন অর্থায়ন ও কৃষি ঋণ সংস্থা আপ্রাকা’র সদস্য। বাংলাদেশে আশা, পিকেএসএফ, এমআরএ, ব্র্যাক, বিকেবি এবং বাংলাদেশ ব্যাংক এ সংগঠনের সদস্য।

/এসআই/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।