দুপুর ০৩:২৪ ; মঙ্গলবার ;  ১২ নভেম্বর, ২০১৯  

প্রভিডেন্ট ফান্ডে মূল বেতনের ৫ থেকে ২৫% রাখা যাবে

প্রকাশিত:

বাংলা ট্রিবিউন রিপোর্ট।।

এখন থেকে সরকারি কর্মকর্তা কর্মচারীরা তাদের মূল বেতনের ২৫ শতাংশের বেশি জেনারেল প্রভিডেন্ট ফান্ডে (জিপিএফ) রাখতে পারবেন না। এর আগে উচ্চ সুদের কারণে অনেক কর্মকর্তা-কর্মচারী নিজেদের মূল বেতনের পুরোটাই প্রভিডেন্ট ফান্ডে জমাতেন।

সরকারি চাকরিজীবীদের জন্য জিপিএফ রুলস সংশোধন করে গেজেট প্রকাশ করেছে সরকার। অর্থ মন্ত্রণালয়ের অতিরিক্ত সচিব ড. মোহাম্মদ আলী খান স্বাক্ষরিত ১ নভেম্বর প্রকাশিত এক গেজেটে ‘জেনারেল প্রভিডেন্ট ফান্ড রুলস- ১৯৭৯'- এর ৯ (১) (বি) সংশোধিত ধারায় এ সীমা নির্ধারণ করা হয়। ১ নভেম্বর থেকে এটি কার্যকর করা হয়েছে।

ফলে এখন থেকে সরকারি চাকরিজীবীদের প্রভিডেন্ট ফান্ডে টাকা রাখার সর্বনিম্ন সীমা নির্ধারণ করা হয়েছে মূল বেতনের ৫ শতাংশ আর সর্বোচ্চ ২৫ শতাংশ।

ড. ফরাসউদ্দিনের নেতৃত্বাধীন জাতীয় বেতন ও চাকরি কমিশনেরও একই ধরনের সুপারিশ ছিল।

১৯৭৯ সালের বিধির ৯ (১) (বি) ধারায় বলা হয়েছে, যাদের মূল বেতন মাসে ৩০০ টাকা পর্যন্ত তারা মূল বেতনের সর্বনিম্ন ১ শতাংশ অর্থ প্রভিডেন্ট ফান্ডে জমা রাখতে পারবেন। ৩০১ থেকে ৫০০ টাকা পর্যন্ত বেতনধারীরা মূল বেতনের ৬ শতাংশ, ৫০১ থেকে এক হাজার টাকা পর্যন্ত বেতন হলে ৯ শতাংশ, এক হাজার এক থেকে দুই হাজার টাকা পর্যন্ত বেতন হলে ১২ শতাংশ এবং মূল বেতন দুই হাজার টাকার বেশি হলে সর্বনিম্ন ১৫ শতাংশ প্রভিডেন্ট ফান্ডে রাখতে পারবেন।

/এসআই/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।