রাত ০৫:২৮ ; শনিবার ;  ১৯ অক্টোবর, ২০১৯  

পাহাড়ে চলছে মারমাদের ‘ওয়াগ্যো প্যোয়’ উৎসব

প্রকাশিত:

সম্পাদিত:

খাগড়াছড়ি প্রতিনিধি॥

দীর্ঘ ৩ মাসের বর্ষাবাস (উপোস) শেষে পার্বত্য অঞ্চলেও বৌদ্ধ ধর্মাবলম্বীদের অন্যতম ধর্মীয় উৎসব প্রবারণা পূর্ণিমা পালিত হচ্ছে। বুধবার সকালে শহরের য়ংড বৌদ্ধ বিহারে চাকমা, মারমা, রাখাইন ও বাঙারি বড়ুয়া সম্প্রদায়ের মানুষ ধর্মীয় আনুষ্ঠানিকতা ও উৎসাহ উদ্দীপনার মধ্যদিয়ে দিনটি উদযাপন করেছে।

তবে একই ধর্মাবলম্বী হলেও অনেকটা ব্যতিক্রমীভাবে মারমা জনগোষ্ঠীর মানুষ ওয়া বা ওয়াগ্যো প্যোয় উৎসব পালন করছে। তারা ধর্মীয় রীতিনীতির বাইরেও সামাজিক উৎসব পালন করে থাকে। বিশেষত হাজার ফুল দিয়ে বুদ্ধপূজা ও সাধ্যমত ভান্তেকে ছোয়াইং (খাদ্য) প্রদান করা মারমা জনগোষ্ঠীর ঐতিহ্য। 

এ উপলক্ষে খাগড়াছড়ি পার্বত্য জেলার বিভিন্ন বিহারে (মন্দির) নানা পূজা আর্চনার আয়োজন করা হয়েছে। সকালে বুদ্ধপূজা, পঞ্চশীল গ্রহণ, সংঘ দান, অষ্ট পরিষ্কার দান, হাজার বাতি দান ও ধর্ম দেশনা দেওয়া হয়। বিকালে বিহারগুলোতে বিশেষ প্রার্থনা, হাজার বাতি প্রজ্জলন ও ফানুস উড়ানো হবে।

এদিকে, শহরের য়ংড বৌদ্ধ বিহারে বিকালে নদীতে নৌকা ভাসানো হবে। দিনটি উপলক্ষে মারমা তরুণ-তরুণীরা উৎসব উল্লাসে অংশ নেয়। অসংখ্য তরুণ-তরুণী ও বিভিন্ন বয়সী মানুষ নতুন পোশাক পরে বিভিন্ন বিহারে যাচ্ছেন।

/এএ/এসটি/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।