রাত ০৯:২৭ ; সোমবার ;  ২৩ সেপ্টেম্বর, ২০১৯  

ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ২০%

প্রকাশিত:

বাংলা ট্র্রিবিউন রিপোর্ট।।

সপ্তাহের শেষ কার্যদিবস বৃহস্পতিবার দেশের পুঁজিবাজারে সবগুলো মূল্য সূচক বেড়েছে। পাশাপাশি টাকার অঙ্কে লেনদেনের পরিমানও আগের দিনের তুলনায় বেড়েছে। এর মধ্যে ডিএসইতে বেড়েছে ২০ দশমিক ৩৬ শতাংশ। আর সিএসইতে বেড়েছে ৩২ দশমিক ১৪ শতাংশ।

এ ছাড়া, ডিএসইতে দেড় শতাধিক এবং সিএসইতে শতাধিক কোম্পানির শেয়ার দর বেড়েছে। উভয় এক্সচেঞ্জ সূত্রে এ সব তথ্য জানা যায়।

ঢাকা স্টক এক্সচেঞ্জে (ডিএসই) বৃহস্পতিবার ডিএসইএক্স সূচক বেড়েছে ২২ পয়েন্ট। ফলে দিনের লেনদেন শেষে সূচকটি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ৪ হাজার ৮১৯ পয়েন্টে। ডিএসইএস বা শরীয়াহ সূচক ৬ পয়েন্ট বেড়ে অবস্থান করছে ১ হাজার ১৮৬ পয়েন্টে। আর ১১ পয়েন্ট বেড়ে ডিএস৩০ সূচক রয়েছে ১ হাজার ৮৪৮ পয়েন্টে।

এ দিন ডিএসইতে ৩১৭টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১৭১টির, কমেছে ৯৬টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৫০টির।

বৃহস্পতিবার ডিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ৮৭ কোটি ২ লাখ টাকা। এ দিন বাজারে ৫১৪ কোটি ৪৩ লাখ টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। বুধবার লেনদেন হয়েছিল ৪২৭ কোটি ৪১ লাখ টাকা।

টাকার অঙ্কে এ দিন ডিএসইতে লেনদেনের শীর্ষ ১০ কোম্পানি হলো বেক্সিমকো ফার্মা, ইসলামী ব্যাংক, ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি, আমান ফিড মিলস, বিএসআরএম স্টিল, গ্রামীণফোন, ইফাদ অটোজ, বিএসআরএম, আরএকে সিরামিকস এবং বেক্সিমকো।

সিএসই

চট্টগ্রাম স্টক একচেঞ্জে (সিএসই) বৃহস্পতিবার সার্বিক সূচক সিএএসপিআই বেড়েছে ৮৪ পয়েন্ট। ফলে দিনের লেনদেন শেষে সূচকটি বেড়ে দাঁড়িয়েছে ১৪ হাজার ৭৭২ পয়েন্টে। এ ছাড়া, সিএসই৩০ সূচক ১০৩ এবং সিএসইএক্স ৫১ পয়েন্ট বেড়েছে।

এ দিন সিএসইতে ২৪৭টি কোম্পানি ও মিউচুয়াল ফান্ডের শেয়ার লেনদেন হয়েছে। এর মধ্যে দর বেড়েছে ১২৪টির, কমেছে ৮৭টির এবং অপরিবর্তিত রয়েছে ৩৬টির।

বৃহস্পতিবার সিএসইতে লেনদেন বেড়েছে ৯ কোটি টাকা। এ দিন বাজারে ৩৭ কোটি টাকার শেয়ার লেনদেন হয়েছে। বুধবার লেনদেন হয়েছিল ২৮ কোটি টাকা।

টাকার অঙ্কে এ দিন সিএসইতে লেনদেনের শীর্ষ ৫ কোম্পানি হলো ইউনাইটেড পাওয়ার জেনারেশন অ্যান্ড ডিস্ট্রিবিউশন কোম্পানি, বেক্সিমকো ফার্মা, আমান ফিড মিলস, কেয়া কসমেটিকস এবং বিএসআরএম।

/এফএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।