রাত ০৩:৩৯ ; রবিবার ;  ১৬ জুন, ২০১৯  

অর্থ লেনদেনে আসছে ‘স্যামসাং পে’

প্রকাশিত:

আনোয়ারুল ইসলাম জামিল

অর্থ লেনদেনের নতুন ব্যবস্থা আনছে স্যামসাং। ‘স্যামসাং পে’ নামের এই ব্যবস্থায় কেনাবেচার জন্য নগদ টাকা, ডেবিট অথবা ক্রেডিট কার্ড রাখতে হবে না। কার্ড ও টাকা রাখার মানিব্যাগ বা ওয়ালেটের প্রয়োজনও হবে না।

অ্যাপল, মাইক্রোসফটসহ অনেক প্রযুক্তি প্রতিষ্ঠান স্মার্টফোন বা ট্যাবভিত্তিক লেনদেন শুরু করেছে। তবে নির্ভরযোগ্য ও সহজলভ্য না হওয়ায় তা পশ্চিমা বিশ্বে সীমিত আকারে ব্যবহার হচ্ছে।  বিশ্বের অন্যতম বেশি বিক্রিত স্মার্টফোন কোম্পানি স্যামসাং এ ক্ষেত্রে এগিয়ে এলে বড় পরিবর্তন ঘটতে পারে। বিশ্বের অনেক স্থানেই স্যামসাং স্মার্টফোন সহজলভ্য।

জানা গেছে, চলতি মাসে কোরিয়ায় স্মার্টফোনভিত্তিক লেনদেন ব্যবস্থা চালু করবে স্যামসাং। স্যামসাং জানিয়েছে, স্যামসাং পে নির্দিষ্ট যন্ত্রের কাছে নিলে কাজ করবে। আবার গতানুগতিক ক্রেডিট বা ডেবিট কার্ডের প্রযুক্তিতেও এর মাধ্যমে লেনদেন করা যাবে। উপরন্তু কার্ড রিডার ব্যবস্থা কাজ না করলে ‘স্যামসাং পে’ অ্যাপ বারকোড সৃষ্টি করে লেনদেন সম্পন্ন করবে। স্যামাসাং পে -এর দ্বিতীয় বৈশিষ্ট্যটি অ্যাপল, টেক-৩০ সহ অন্যান্য লেনদেন ব্যবস্থার চেয়ে একে এগিয়ে রাখবে। উল্লেখিত ব্যবস্থাগুলো নির্দিষ্ট যন্ত্র ও অনলাইনে কাজ করলেও গতানুগতি ক্রেডিট বা ডেবিট কার্ড লেনদেন ব্যবস্থায় কাজ করে না। স্যামসাং পে- এর মাধ্যমে ভার্চুয়ালি ক্রেডিট, ডেবিট ও নির্ভরযোগ্য কার্ড তৈরি করা যাবে। আর অ্যাপলসহ অন্যান্য প্রতিযোগীর চেয়ে বেশি ক্রেডিট কার্ড যুক্ত করার সুবিধা দেবে স্যামসাং। ফোনে লেনদেন নিশ্চিত হবে হাতের আঙুলের ছাপে। ফলে অন্যের কাছ থেকে নিরাপদ থাকবে গোপন নম্বর।

বলা যায়, স্যামসাং পে চালু হলে অবশেষে মানুষ মানিব্যাগটি বাড়িতেই রেখে বাইরে যেতে পারবে। এটি প্রাথমিক অবস্থায় শুধুমাত্র স্যামসাং এস-সিক্স, এসসিক্স এজ, এজ প্লাস ও নোট ফাইভে পাওয়া যাবে।

/এইচএএইচ/

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।