ভোর ০৬:৩৫ ; শনিবার ;  ২৯ ফেব্রুয়ারি, ২০২০  

টরন্টোতে বাংলা উৎসব

প্রকাশিত:

মোশাররফ হোসেন, টরেন্টো ।।

ফোবানা’২৯ ঘিরে টরেন্টোতে চলছে সাজ সাজ রব। উত্তর আমেরিকার বাংলা উৎসবের আসর এবার টরেন্টোতে। পাঁচতারা হোটেল পার্কওয়ে শেরাটনে আগামী ৫ ও ৬ সেপ্টেম্বর এ উৎসবে যোগদিতে এবার উত্তর আমেরিকায় বসবাসকারী বাঙালিদের ঢল নামবে বলে আশা করা হচ্ছে।

এবার আমেরিকার দক্ষ সংগঠক আবু যুবায়ের দারা আবার এ উৎসবের দায়িত্ব নিয়েছেন। দারা আবু যুবায়েরর উৎসব আয়োজনে থাকছে নতুননের জয়গান। বাংলাদেশ থেকে যাচ্ছেন খ্যাতনামা শিল্পী সুবির নন্দী ও সামিনা চৌধুরি এবং ক্ষুদে গানরাজ কোয়েল, শফিক, তুহিন।

অনুভবে ও চেতনায় বাংলাদেশ, এ আদর্শের বাঁশি বাজিয়ে ১৯৮৭ সালে উত্তর আমেরিকার বাঙালিরা ফোবানা তথা বাংলা উৎসবের সূচনা করেছিল। প্রতি বছর আমেরিকা ও কানাডার বিভিন্ন শহরে এ উৎসবের আয়োজন করা হয়।

এবার এ উৎসব হবার কথা ছিল ওয়াশিংটনে। অনিবার্য কারণে ২২ জুলাই ২০১৫ ফোবানা কমিটি উৎসবটি টরেন্টোতে করার সীদ্ধান্ত নেয়। মাত্র এক মাসের প্রস্তুতিতে ফোবানার মত বড় বাংলা উৎসব আয়োজনে দায়িত্ব নিতে সম্মত হন দারা।

টরেন্টোতে বসে একান্ত আলাপে দারা বললেন, এটাই হবে আমার শেষ উৎসব আয়োজন। ফিরে চল মাটির টানে- এ চিন্তাধারা বুকে লালন করে দীর্ঘ পথ পাড়ি দিয়েছি। উত্তর অমেরিকার বাঙালিদের একটি ছাতার নীচে একত্র করার চেষ্টা করেছি। ফোবানা কী, এটা এখন দেশি-বিদেশি সবাই জানেন।

দারা আশাবাদ ব্যক্ত করে জানালেন, বাঙালির রয়েছে হাজার বছরের গভীর সাংস্কৃতিক ঐতিহ্য। উত্তর আমেরিকায় বসবাসকারী কয়েক লাখ বাঙালির সন্তানরা বাংলাদেশের লাল সবুজ পতাকা তুলে ধরে, আমার সোনার বাংলা ..আমি তোমায় ভালবাসি..গান গেয়ে সম্মুখে এগিয়ে যাবেই। সেই সাথে আমার প্রিয় বাংলাদেশও এগিয়ে যাবে।

বাংলাদেশ সোসাইটি এসসির প্রতি কৃতজ্ঞতা জানিয়ে দারা আসন্ন ফোবানায় বাঙালিদের অংশ নেবার আহ্বান জানিয়ে বলেন, আসুন আমার প্রিয় বাংলাদেশকে সবাই মিলে এগিয়ে নিয়ে যাই।

 

আরএফ 

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।