রাত ০৯:৩৫ ; মঙ্গলবার ;  ১৬ অক্টোবর, ২০১৮  

রাজকন্যার অন্দরমহল

প্রকাশিত:

সোহেলী সায়মা সেঁজুতি॥ 

নিজের ঘর মানেই একান্ত আপন ভুবন। কল্পনাগুলো প্রথম ডানা মেলতে শুরু করে এখান থেকেই। পরিবারের সবচেয়ে ছোট সদস্যের ঘরটি তাই হওয়া চাই একেবারে কল্পরাজ্যের মতোই।

নিজের একান্ত ভুবনে নিজের মতো করে সময় কাটানোর যায়, ইচ্ছেমতো বোনা যায় স্বপ্নের জাল, আবার প্রিয় বন্ধুদের নিয়ে নির্মল আনন্দেও মাতোয়ারা হওয়া যায়।  এসব পারিপার্শ্বিক ও আনুসাঙ্গিক দিক বিবেচনা করেই নকশা করা চাই সদ্য টিনএজে পা দেওয়া কন্যাটির ঘর। রুমটি একই সঙ্গে  বয়স উপযোগী, আকর্ষণীয় এবং আরামদায়ক হওয়া জরুরী। ঘর যেন সহজে এলোমেলো না হয় সেজন্য প্রচুর পরিমাণ স্টোরেজের ব্যবস্থা রাখতে হবে। এতে বাড়তি জিনিষ গুছিয়ে ফেলা যাবে চট করে। বুকশেলফটাও খুব প্রয়োজনীয় একটি আসবাব। সেটার নকশা যদি হয় আকর্ষণীয় আর বৈচিত্র্যময় তবে বদলে যাবে পুরো ঘরের আবহ।

এ বয়সে রঙিন সবকিছুই ভালো লাগে। তাই তাদের রুম সাজাতে পারেন নানান উজ্জ্বল রঙে। আকারে খানিক ছোট এবং দেখতে রঙিন আসবাব রাখতে পারেন রুমে। দেখতে স্টাইলিশ হওয়ার পাশাপাশি প্রয়োজনের ব্যাপারটিও মনে রাখতে হবে। রুমের আয়তনের উপর নির্ভর করে আসবাবের আকার। দেয়ালেও থাকা চাই রঙের খেলা। নীল, বেগুনি, গোলাপিসহ বিভিন্ন উজ্জ্বল রঙে রাঙিয়ে দিতে পারেন ঘরের ছোট সদস্যটির দেয়াল।

দেয়ালের রঙের সঙ্গে মিল রেখে পর্দা ও অন্যান্য আসবাবের নকশা করলে ভালো দেখাবে। লাইটিংও খুব গুরুত্বপূর্ণ। এটা করতে পারেন মনের মতো করেই। হালকা উষ্ণ আলোয় রহস্যময়তা নিয়ে আসা যায় রুমে। আবার মৃদু নীল আলোয় সাজানো যায় কল্পনার পৃথিবী। প্রয়োজনীয় উজ্জ্বল আলো তো ব্যবহার করতেই হবে, তবে পরিমিত উপায়ে। পড়ার টেবিলে পর্যাপ্ত আলো নিশ্চিত করতে ভুলবেন না। চোখের সাথে সামঞ্জস্য হয় এমন আলো ব্যবহার করাই বাঞ্ছনীয়।

প্রতিদিনের ব্যবহার্য জিনিসপত্র ঠিকঠাক গুছিয়ে রাখার জন্য কেবিনেটের ব্যবস্থা থাকা চাই। রুম যদি ছোট হয় তবে দুই পার্টের খোলা জানালায় হালকা রঙের পর্দা দিয়ে দিন। দিনের আলো এসে রুমটাকে বেশ বড় মনে হবে। আবার রাতেও খোলামেলা ভাব থাকবে। রুমের নকশা যেমনই হোক না কেন, সেটা যেন আপনার রাজকন্যার মনের মতো হয়। রূপকথার রাজ্য সাজুক তার মনের রঙেই।       
 

লেখক: ইন্টেরিওর আর্কিটেক্ট
ছবি: আর্কিডেন ইন্টিরিওর



/এনএ/ আরএফ 

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।