দুপুর ০২:০১ ; মঙ্গলবার ;  ১৭ জুলাই, ২০১৮  

কেন ‘বাহুবলী’ সেরা?

প্রকাশিত:

সম্পাদিত:

বিনোদন ডেস্ক।।

বলা হচ্ছে প্রায় আড়াইশ কোটি রুপি খরচ হয়েছে সদ্য মুক্তি পাওয়া ছবি `বাহুবলী’তে। হিসাব ঠিক থাকলে এই ছবিটিই হবে ভারতের ইতিহাসে সবচেয়ে ব্যয়বহুল ছবি। কীসে খরচ হয়েছে এত টাকা! প্রডাকশনের দিক থেকে কেনই বা সেরা বলা হচ্ছে ‘বাহুবলী’কে? চলুন সন্ধানে নামা যাক-

১. ছবির স্পেশাল ইফেক্টের জন্য কাজ করেছে সারা বিশ্বের নামকরা ২৬টি ভিএফএক্স স্টুডিও ও বিভিন্ন দেশের ৬০০ গ্রাফিক আর্টিস্ট।

২. ভারতে ছবির জন্য সর্বোচ্চ ২৪ ফুট উঁচু সেট তৈরি করা হয়েছিল। আর বাহুবলী’র জন্য বানানো হয়েছে ৪৫ ফুট উঁচু সেট।

৩. আর্ট, ডিজাইন ও ভিজ্যুয়াল ইফেক্টের জন্য কাজ করেছে প্রায় ৮০০ টেকনিশিয়ান। এদের বেশিরভাগই কোনও না কোনও সময় পুরস্কার পাওয়া।

৪. তেলুগু ও তামিল ভাষায় নির্মিত ছবিটি হিন্দি, মালায়ালাম, ইংরেজি, ফরাসি ও জাপানিজ ভাষায় ডাব করা হয়েছে।

৫. সাড়ে ৪ হাজার ভিএফএক্স দৃশ্য নেওয়া হয়েছে এ ছবির জন্য।

৬. ছবির প্রি-প্রোডাকশনে কেটেছে এক বছর। এত দীর্ঘ সময় আর কোনও ভারতীয় ছবির জন্য লাগেনি। আর তৈরি করতে মোট সময় লেগেছে ৩ বছর।

৭. ছবির চরিত্র প্রভাষকে প্রতিদিন ৪০টা করে সেদ্ধ ডিম খেতে হয়েছে। এমনকি ছবির জন্য নিজের বিয়ে পর্যন্ত পিছিয়ে দিয়েছেন তিনি!

৮. ছবির নায়ক প্রভাষের শরীরচর্চার জন্যই দেড় কোটি রুপির যন্ত্রপাতি কিনতে হয়েছে।

৯. চরিত্রদের মারামারি শেখাতে ভিয়েতনাম থেকেও মার্শাল আর্ট এক্সপার্ট নিয়ে আসা হয়েছিল।

‘বাহুবলী’ নির্মাণের পেছনের গল্প দেখুন এই লিঙ্কে:

/এআরসি/এমএম/

 

***বাংলা ট্রিবিউনে প্রকাশিত কোনও সংবাদ, কলাম, তথ্য, ছবি, কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার দণ্ডনীয় অপরাধ। অনুমতি ছাড়া ব্যবহার করলে কর্তৃপক্ষ আইনি ব্যবস্থা গ্রহণ করবে।